মহম্মদ সেলিম: হুমকি উড়িয়ে বিপুল জনসমাগমই বাম-কংগ্রেসের ক্ষমতায় আসার ইঙ্গিত

ভগবানগোলার জনসভায় তৃণমূল-বিজেপিকে চাঁচাছোলা ভাষায় আক্রমণ সেলিমের

বহরমপুরের ভগবানগোলায় মুর্শিদাবাদ জেলা সিপিএমের তরফে মিছিল ও সমাবেশে ব্যাপক জনসমাগম। যা দেখে আশায় বুক বাঁধছে বাম কংগ্রেস। বৃহস্পতিবার ভগবানগোলার স্বপ্নগড় থেকে শুরু হয় মূল মিছিল। এদিন নহরপাড়া,বাহাদুরপুর, জাফরের মোড়, বাটিকামাড়ি, বালিগ্রাম প্রভৃতি অঞ্চলগুলি ছিল কার্যত লালঝাণ্ডার দখলে। মিছিলের শেষে নশিপুর স্কুল মাঠে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন মহম্মদ সেলিম।

উপস্থিত ছিলেন মুর্শিদাবাদ জেলা কমিটির সম্পাদক নৃপেন চৌধুরি, বিধায়ক মহসিন আলি সহ সিপিএমের জেলা নেতৃত্ব। সমাবেশ থেকে তৃণমূল এবং বিজেপিকে একই সঙ্গে চাঁচাছোলা ভাষায় আক্রমণ করেন সেলিম। তিনি বলেন তৃণমূল বিজেপিকে হারাবে না, কারণ চোরেরা চোরকে ধরে না, সাগরেদ হয়।

এদিন RSS কে কটাক্ষ করে তিনি বলেন, এরা সবসময় ভেক ধরে কাজ করে, রাজ্যে মমতা ব্যানার্জিকেও ওরা ব্যবহার করেছে, এখন আবার ঝাঁকের কই ঝাঁকে ফিরছে। প্রাক্তন সাংসদের দাবি, কিছু মিডিয়া বিজেপি আসার দাবি করলেও আসলে বিজেপি আসছে না। আসছেনা বলেই তৃণমূলের দাগী নেতাদের কিনছে বিজেপি। বাংলার মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকার ফেরাতে পারে একমাত্র বামেরা, মানুষ ক্রমশ তা বুঝতে পারছে।

আর তাই এবারের বিধানসভা নির্বাচনে বাংলায় ক্ষমতায় আসতে চলছে বাম ও কংগ্রসের জোট। সিপিএম পলিট ব্যুরো সদস্যের দাবি বাম কংগ্রেসের প্রতিটি সভায় বিপুল জনসমাগম সেই ইঙ্গিতই করছে। দিল্লিতে কৃষকদের আন্দোলনে ৫৬ ইঞ্চি ভয় পেয়েছে বলেও এদিন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে কটাক্ষ করেন তিনি।

ভিড়ে ঠাসা জনগণকে উদ্দেশ্য করে প্রাক্তন সাংসদ বলেন, যেভাবে হুমকি উড়িয়ে মানুষ এসেছেন, এই মেজাজ দেখতে হবে নির্বাচনেও। এদিন সমাবেশে ফসলের ন্যায্য় দাম, ভগবানগোলায় ডিগ্রি কলেজের দাবি সহ একাধিক দাবিতে সরব হয় সিপিএম কর্মী সমর্থকরা।

Comments
Loading...