ব্রিগেডে যাচ্ছেন না বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য, ‘যেতে না পারার যন্ত্রনা বোঝানো যাবে না’, দিলেন বার্তা

ব্রিগেডে যেতে না পারলেও বুদ্ধদেব বাবু লিখিত বার্তা প্রেরণ করেছেন।

শারীরিক অসুস্থতার কারণে রবিবারের ব্রিগেড সমাবেশে যেতে পারছেন না প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য। বুদ্ধদেবের বর্তমান শারীরিক অবস্থার কথা মাথায় রেখেই সমাবেশে যাওয়ার ছাড়পত্র দেননি চিকিৎসকরা। কিন্তু ব্রিগেডে যেতে না পারলেও বুদ্ধদেব বাবু লিখিত বার্তা প্রেরণ করেছেন।

বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য তাঁর লিখিত বার্তায় জানাচ্ছেন, “ব্রিগেড সমাবেশ নিয়ে বিভিন্নভাবে খবরাখবর নেওয়ার চেষ্টা করছি। শুনে বুঝতে পারছি বহু মানুষ সমাবেশে আসবেন এবং অনেকে এসে গেছেন। বড় সমাবেশ হবে। এরকম একটা বৃহৎ সমাবেশে যেতে না পারার মানসিক যন্ত্রণা বোঝানো যাবে না। মাঠে ময়দানে কমরেডরা লড়াই করছেন আর আমি শারীরিক অসুস্থতা নিয়ে ডাক্তারবাবুদের  পরামর্শ মেনে চলেছি। ময়দানে মিটিং চলছে আর আমি গৃহবন্দী যা কোনদিন কল্পনাও করতে পারিনি। সমাবেশের সাফল্য কামনা করছি।”

সেই প্রথম দিন থেকে এই লড়াকু মানুষটির আবেগের জড়িয়ে গিয়েছে ব্রিগেড সমাবেশের আসর। এই প্রথমবার অসুস্থতার কারণে শারীরিকভাবে উপস্থিত থাকতে পারবেন না ব্রিগেডের মঞ্চে। এক বৃহৎ আকারের সমাবেশে না থাকতে পারার মানসিক যন্ত্রণাকেও উল্লেখ করেছেন তাঁর বার্তায়।

দলে ছাত্র এবং যুব নেতৃবৃন্দ চেয়েছিল ব্রিগেডের সমাবেশ প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী উপস্থিত থাকুন।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালের ব্রিগেড সমাবেশে শারীরিকভাবে উপস্থিত থাকলেও বার্ধক্যের কারণে মঞ্চে উঠতে পারেননি বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য। এরপর শারীরিক অসুস্থতার কারণে বেশ কয়েকবার হাসপাতালে ভর্তি হতে হয় তাঁকে। সম্প্রতি শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য।

Comments
Loading...