প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সহমত হয়ে অলোক ভার্মাকে সিবিআই থেকে সরানোর প্রস্তাবে যিনি সম্মতি দিয়েছিলেন, সেই বিচারপতি এ কে সিক্রিকে কমনওয়েলথ সেক্রেটেরিয়েট আরবিট্রাল ট্রাইবিউনাল বা সিএসআরটি’র একটি উচ্চ পদে নিয়োগের জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের প্রস্তাব ফেরালেন তিনি। কমনওয়েলথ সেক্রেটেরিয়েট আরবিট্রাল ট্রাইব্যুনাল’এ আরবিট্রেটর পদের জন্য সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি এ কে সিক্রির নাম প্রস্তাব করেছিল কেন্দ্রীয় সরকার। কিন্তু কেন্দ্রের সেই প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করলেন বিচারপতি একে সিক্রি।
সূত্রের খবর, গত ডিসেম্বর মাসে এই পদের জন্য সিক্রির নাম প্রস্তাবের সিদ্ধান্ত নেয় কেন্দ্র। আগামী ৬ মার্চ সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি পদে মেয়াদ শেষ হচ্ছে এ কে সিক্রির। মনে করা হচ্ছিল সব কিছু ঠিকঠাক চললে তারপরই লন্ডনে এই আন্তর্জাতিক সংগঠনে যোগ দেবেন তিনি।
গত বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বাধীন তিন সদস্যের নিয়োগ কমিটি সিবিআই প্রধানের পদ থেকে অলোক ভার্মাকে অপসারণের যে সিদ্ধান্ত নেয়, সেই কমিটির বৈঠকে সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতির প্রতিনিধি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন এ কে সিক্রি। তিনিও ভার্মার অপসারণের পক্ষেই রায় দেন। বৈঠকের অন্য প্রতিনিধি বিরোধী দলনেতা মল্লিকা অর্জুন খাড়গে যদিও এই অপসারণ প্রস্তাবের বিরোধিতা করেছিলেন।
কমনওয়েলথ গোষ্ঠীভুক্ত ৫৩ টি সদস্য দেশের মধ্যে কোনও আইনি জটিলতা দেখা গেলে আন্তর্জাতিক ওই ট্রাইব্যুনালটি তাতে হস্তক্ষেপ করে সমাধানের চেষ্টা করে। এই পদে মনোনীত হলে চার বছরের জন্য ওই পদে বসতেন সিক্রি। কিন্তু তার আগেই প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করলেন তিনি। জানিয়েছেন, অবসরের পর নয়া কোনও পদে যেতে তিনি আগ্রহী নন।

You may also like