প্রতিবাদ করা অপরাধ নয়, ভারাভারা রাও, সোমা সেন, সাফুরা জারগারদের মুক্তি চাই, বিবৃতি অপর্ণা সেন, জহর সরকার, নাসিরুদ্দিন শাহ সহ ৩৭৮ জনের

ভারতে বিপজ্জনক হারে বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। মারণ ভাইরাসের থাবা থেকে বাদ যায়নি দেশের জেলগুলোও। এবার দেশের তিনশোরও বেশি মানুষ সাক্ষর করলেন ভারাভারা রাও, সুধা ভারদ্বাজ, রোনা উইলসন সহ ১১ সমাজকর্মীর জেল থেকে মুক্তি চেয়ে লেখা বিবৃতিতে। সেই বিবৃতিতে অসমের অখিল গগৈ, দিল্লির সাফুরা জারগার সহ বাকি রাজনৈতিক বন্দিদেরও মুক্তির দাবি জানানো হয়েছে।
বিবৃতির প্রথমেই ভিমা কোরেগাঁও মামলায় বর্তমানে জেলবন্দি ভারাভারা রাও, সুধা ভারদ্বাজ, সোমা সেন, আনন্দ তেলতুম্বন্ডে, গৌতম নাভলাখা, অরুণ ফেরেইরা, ভার্নন গঞ্জালভেস, সুরেন্দ্র গ্যাডলিং, মহেশ রাউত, সুধীর শাওয়ারে এবং রোনা উইলসনের মুক্তির দাবি জানিয়েছেন আদুর গোপালকৃষ্ণন, মীরা নায়ার, অমিতাভ ঘোষ, অমল পালেকার, রোমিলা থাপার, শাবানা আজমিরা। বিবৃতিতে বলা হয়েছে, মহারাষ্ট্রের জেলে অনেকের কোভিড ১৯ এ মৃত্যু হয়েছে। অসমের জেলখানায় বন্দি করে রাখা হয়েছে মানবাধিকার তথা কৃষক নেতা অখিল গগৈকে।
সারা দেশে কোভিড ১৯ যখন অতিমারির আকার নিয়েছে, তখন এই মানুষগুলোকে জেলে বন্দি করে রাখার অর্থ হল এঁদের জীবন বিপন্ন করে তোলা। বিবৃতিতে তাঁদের দ্রুত জামিন মঞ্জুর করার আবেদন করা হয়েছে।
জামিয়া মিলিয়া ইউনিভার্সিটির কৃতী পড়ুয়া সাফুরা জারগর গর্ভবতী। কিন্তু তা সত্ত্বেও তাঁকে জামিন না দিয়ে তাঁর এবং তাঁর গর্ভের সন্তানের জীবন বিপন্ন করে তোলা হচ্ছে। সিএএ-এনআরসি বিরোধিতায় সরব জেএনইউ এবং জামিয়ার পড়ুয়াদেরও ফৌজদারি মামলা রুজু করে আটকে রাখা হয়েছে। তাঁদেরও জামিন দেওয়া হয়নি।
বিবৃতিতে অপর্ণা সেন, কঙ্কনা সেন, প্রকাশ রাজ, নাসিরুদ্দিন শাহ, জহর সরকার, টি এম কৃষ্ণা, অনুরাগ কাশ্যপরা আবেদন করেছেন, ধৃতদের যেন মানবিকতার খাতিরে জামিন দেওয়া হয়।
পাশাপাশি বিবৃতিতে বলা হয়েছে, অতিমারির সময় ইচ্ছাকৃতভাবে জেলে বন্দি করে রাখার ফলে যদি তাঁরাও সংক্রমিত হন, সেজন্য দায়ী থাকবে সরকার। পাশাপাশি দেশের অভ্যন্তরের প্রতিবাদী কণ্ঠকে চুপ করানোর চেয়ে এই মুহূর্তে অতিমারিকে জেল এবং জেলের বাইরে কীভাবে ছড়িয়ে পড়া আটকানো যায়, সেদিকেই বেশি নজর দেওয়া প্রয়োজন বলেও বিবৃতিতে জানিয়েছেন তাঁরা। সরকার কী করছে তার উপর তীক্ষ্ণ নজর রাখা হবে।
সম্প্রতি রাষ্ট্রপতি ও প্রধান বিচারপতিকে চিঠি দিয়ে মানবিকতার খাতিরে অশীতিপর ভারাভারা রাও এবং অধ্যাপক জি এন সাইবাবার জামিনের আর্জি জানিয়েছিলেন নোয়াম চমস্কি, জুডিথ বাটলার, পার্থ চ্যাটার্জিরা। এবার বিবৃতি প্রকাশ করলেন দেশের বিদ্বজ্জ্বনেরা।

বাংলায় পড়ুন সেই বিবৃতি:  Call for the Release of Activists_Bangla

Comments
Loading...