করোনা চিকিৎসায় যুক্ত ডাক্তার-স্বাস্থ্যকর্মীদের উপর হামলায় ৭ বছর পর্যন্ত জেল, ২ লক্ষ টাকা জরিমানা, অর্ডিনান্স আনল কেন্দ্র

করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে যখন মরিয়া লড়াই চলছে, তখন শিরোনামে এসেছে স্বাস্থ্যকর্মীদের উপর হামলার ঘটনা। কোথাও করোনা রোগীর চিকিৎসা করার অপরাধে পাড়ায় ঢুকতে পারছেন না ডাক্তারবাবু। আবার কোথাও একই অভিযোগ করে স্থানীয় মানুষ বাড়িছাড়া করছেন নার্স কিংবা অন্যান্য স্বাস্থ্যকর্মীদের। এবার এই প্রবণতা রুখতে কড়া অর্ডিনান্স আনল কেন্দ্রীয় সরকার।

অর্ডিনান্স আনা হল, স্বাস্থ্যকর্মীদের উপর যে কোনও রকম হামলার ঘটনায় জামিন অযোগ্য ধারা প্রয়োগ হবে। দোষ প্রমাণে ৬ মাস থেকে ৭ বছর পর্যন্ত কারাদণ্ডও হতে পারে।
বুধবার কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভরেকর জানান, মহামারি আইনে অর্ডিনান্স এনে তা আরও কঠোর করা হয়েছে। ৩০ দিনের মধ্যে তদন্ত শেষ করে রিপোর্ট দিতে হবে ইন্সপেক্টরকে। এক বছরের মধ্যে সাজা দিতে হবে অপরাধীকে। ৫০ হাজার থেকে ২ লক্ষ টাকা পর্যন্ত জরিমানা করারও সংস্থান রয়েছে আইনে। তিনি বলেন, গোটা বিশ্ব যখন করোনা পরিস্থিতিতে ডাক্তার-স্বাস্থ্যকর্মীদের মাথায় করে রাখছে, তখন কিছু লোক তাঁদের উপর হামলার ঘটনা ঘটাচ্ছেন। সরকার কড়া হাতে এসব দমন করবে। কেন্দ্রের সাফ কথা, ডাক্তার, স্বাস্থ্যকর্মীদের উপর কোনও ধরনের আক্রমণ বরদাস্ত করা হবে না।

Comments
Loading...