কেন্দ্রের নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের প্রতিবাদ করায় আটক করা হল প্রাক্তন আইএএস অফিসার কন্নন গোপীনাথনকে (Kannan Detained)।
গত ৫ অগাস্ট জম্মু-কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা বিলোপের প্রতিবাদ জানিয়ে আমলার পদ থেকে ইস্তফা দেন গোপীনাথন, এরপর কেন্দ্রের একাধিক নীতির প্রতিবাদ জানাতে তিনি রাজ্যে রাজ্যে ঘুরে সভা করছেন। কেন্দ্রের ওই আইনের বিরুদ্ধে গর্জে ওঠায় প্রাক্তন আইএএস অফিসারকে মুম্বইয়ে আটক করে পুলিশ।
মুম্বই মিরর সংবাদমাধ্যমের একটি প্রতিবেদন অনুযায়ী, পুলিশ জানিয়েছে, শুক্রবার মুম্বইয়ের মেরিন ড্রাইভে গোপীনাথনরা জড়ো হয়ে কেন্দ্রীয় বিলের প্রতিবাদ করেন। সে সময় তাঁদের আটক (Kannan Detained) করা হয়।
যদিও ট্যুইটারে ভিন্ন অভিযোগ করেন কান্নন গোপীনাথন। তিনি লেখেন, কোনও প্রতিবাদ বা সভা শুরুর আগেই অবৈধভাবে তাঁদের আটক করে পুলিশ। অন্য একটি ট্যুইটে প্রাক্তন আইএএস অফিসার পুলিশের সঙ্গে তাঁদের ছবি পোস্ট করে লেখেন, বেরিয়ে আসুন এবং নিজেদের সাংবিধানিক অধিকার পুনরূদ্ধার করুন। নাহলে চিরতরে নিজেদের অধিকার হারাবেন। একটি ছবিতে তাঁকে সংবিধানের বই হাতে দেখা যায়। তাঁদের পিছনেই দাঁড়িয়ে ছিলেন এক পুলিশ কর্মী।

Kannan Detained

২০১৪ সালের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত পাকিস্তান, আফগানিস্তান, বাংলাদেশ থেকে এ দেশে আসা ছয় অ-মুসলিম ধর্মের শরণার্থীকে নাগরিকত্ব দেওয়ার জন্য আইন এনেছে কেন্দ্রের বিজেপি সরকার। যার প্রতিবাদে বিভিন্ন রাজ্যেই তীব্র আন্দোলন শুরু হয়েছে। পশ্চিমবঙ্গে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন ও এনআরসি-র প্রতিবাদে তীব্র বিক্ষোভ ও আন্দোলনে হাওড়া থেকে একাধিক দূর পাল্লার ট্রেন বাতিল করা হয়েছে। জায়গায় জায়গায় সড়ক অবরোধ, ট্রেনে পাথর ছুঁড়ে, বাস জ্বালিয়ে, টায়ার পুড়িয়ে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন আন্দোলনকারীরা। তাঁদের গণতান্ত্রিক উপায়ে প্রতিবাদ করার বার্তা দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, যাঁরা সরকারি সম্পত্তিতে আগুন লাগিয়ে, রাস্তা অবরোধ করে প্রতিবাদ জানাচ্ছে, তাঁদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ধারাবাহিকভাবে পাশে থাকার জন্য The Bengal Story র পাঠকদের ধন্যবাদ। আমরা শুরু করেছি সাবস্ক্রিপশন অফার। নিয়মিত আমাদের সমস্ত খবর এসএমএস এবং ই-মেইল এর মাধ্যমে পাওয়ার জন্য দয়া করে সাবস্ক্রাইব করুন। আমরা যে ধরনের খবর করি, তা আরও ভালোভাবে করতে আপনাদের সাহায্য আমাদের উৎসাহিত করবে।

Login Subscribe

You may also like