এরিকসনের মামলার জেরে অনিল আম্বানীকে নোটিশ পাঠালো সুপ্রিম কোর্ট

রিলায়েন্সের কর্ণধার অনিল আম্বানীকে এরিকসন ইন্ডিয়া মামলায় নোটিশ পাঠাল সুপ্রিম কোর্ট। সোমবার বিচারপতি আর এফ নরিমানের বেঞ্চে মামলার শুনানিতে, বিচারপতি অনিল আম্বানীর এই বিষয়ে প্রতিক্রিয়া জানতে চেয়েছেন। আগামী চার সপ্তাহের মধ্যে এরিকসন মামলায় অনিল আম্বানীসহ সংস্থার অন্যান্যদের প্রতিক্রিয়া জমা দিতে বলেছে আদালত।
রিলায়েন্সের তরফের আইনজীবী কপিল সিব্বল ও মুকুল রোহতগি কোম্পানির পক্ষ থেকে মোট ১১৮ কোটি টাকা জমা নেওয়ার আর্জি জানিয়েছিলেন। যদিও, এরিকসন পক্ষের আইনজীবী দাবি করেন, বকেয়া ৫৫০ কোটি টাকাই জমা করতে হবে। এরপরই বিচারপতি নির্দেশ দেন, চার সপ্তাহের মধ্যে রিলায়েন্স কর্ণধারের প্রতিক্রিয়া জানাতে হবে।
উল্লেখ্য, ২০১৪ সালে এরিকসনের সঙ্গে চুক্তি হয় অনিলের সংস্থা আর কমের। চুক্তির শর্ত ছিল, ভারতে আর কমের টেলিকম ব্যবসা সামলাবে এরিকসন। কিন্তু, পরে আর কমের বিরুদ্ধে চুক্তিভঙ্গের অভিযোগ আনে এরিকসন। দ্বারস্থ হয় ন্যাশনাল কোম্পানি ল্য ট্রাইবুনালের। আর কমের কাছে বকেয়া প্রায় দেড় হাজার কোটি টাকা দাবি করে এরিকসন। পরে ৫৫০ কোটি টাকা মেটানোর রফা সূত্রে আসে দুই সংস্থা। গত ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে সেই টাকা মেটানোর কথা ছিল আর কমের। কিন্তু তা না হওয়ায়, সুপ্রিম কোর্টে আবেদন জানায় সুইডিশ বহুজাতিক সংস্থাটি। গত ২৩ অক্টোবর সুপ্রিম কোর্ট নির্দেশ দেয়, ১৫ ডিসেম্বরের মধ্যে এরিকসনের বকেয়া টাকা মেটাতে হবে আর কমকে। কিন্তু সেই সময়সীমা পেরিয়ে যাওয়ার পরেও, বকেয়া অর্থ না পাওয়ায় ফের সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয় সুইডিশ সংস্থা এরিকসন। সুপ্রিম কোর্টে এরিকসনের তরফে আবেদন জানিয়ে বলা হয়, শীর্ষ আদালতের নির্দেশ সত্ত্বেও, ১৫ ডিসেম্বরের মধ্যে তাদের বকেয়া ৫৫০ কোটি টাকা মেটাতে পারেনি আর কম। এরিকসনের দাবি করে, আদলতের নির্দেশ অমান্য করে বকেয়া না মেটানোয় আর কম কর্ণধার অনিল আম্বানীকে গ্রেফতারির নির্দেশ দিক কোর্ট। তারই পরিপ্রেক্ষিতে এদিন আনিল আম্বানীকে নোটিশ পাঠালো সুপ্রিম কোর্ট।

Comments
Loading...