‘মোদী কোড অফ মিসকন্ডাক্ট’, কমিশন-বিজেপিকে একই বন্ধনীতে ফেলে তোপ কংগ্রেসের, মমতার পাশে মায়াবতী, অখিলেশ, চন্দ্রবাবু

নজিরবিহীনভাবে রাজ্যে প্রচারের সময় কমিয়ে দেওয়ার কমিশনের সিদ্ধান্তের পর একে একে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পাশে এসে দাঁড়াচ্ছেন বিরোধী নেতানেত্রীরা। নির্বাচন কমিশনের মডেল কোড অফ কন্ডাক্টকে মোদী কোড অফ মিসকন্ডাক্ট বলে কটাক্ষ কংগ্রেসের। মমতার পাশে দাঁড়িয়ে কমিশনকে তীব্র আক্রমণ মায়াবতীর।

মঙ্গলবার কলকাতায় অমিত শাহের রোড শো চলাকালীন অশান্তি এবং বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙার ঘটনার প্রেক্ষিতে বুধবার সকালে নয়াদিল্লি থেকে সাংবাদিক বৈঠক করে কমিশনের উদ্দেশে তোপ দাগেন বিজেপি সভাপতি। বিকেলেই কমিশন পশ্চিমবঙ্গে ৩২৪ ধারা প্রয়োগ করার কথা ঘোষণা করে। এর ফলে প্রচার শেষের সময় শুক্রবার বিকেলের পরিবর্তে এগিয়ে এসে হয় বৃহস্পতিবার রাত ১০ টা।

কমিশনের এই সিদ্ধান্তের তীব্র বিরোধিতা করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এবার তিনি পাশে পেলেন বিরোধীদেরও। বৃহস্পতিবার সকালে সাংবাদিক বৈঠক করে কমিশনের উদ্দেশে তোপ দাগেন কংগ্রেস মুখপাত্র রণদীপ সিংহ সুরজেওয়ালা। বলেন, নির্বাচন কমিশন পুরোপুরি বিজেপির কাছে আত্মসমর্পণ করেছে। মোদী-অমিত শাহের হাতের পুতুল হিসেবে কাজ করতে গিয়ে কমিশন সংবিধানের সঙ্গে ক্ষমার অযোগ্য অপরাধ করছে বলেও আক্রমণ শানান কংগ্রেস মুখপাত্র। মোদীকে জনসভা করার সুযোগ করে দেওয়াই কমিশনের সিদ্ধান্তের একমাত্র উদ্দেশ্য বলেও দাবি রণদীপ সিংহ সুরজেওয়ালার। মমতার পাশে দাঁড়িয়ে কমিশনকে একহাত নিয়েছেন বসপা নেত্রী মায়াবতীও। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী, অমিত শাহ এবং অন্যান্য বিজেপি নেতারা পরিকল্পনা করে বাংলা ও তার মুখ্যমন্ত্রীকে অন্যায্য এবং কুৎসিত আক্রমণ করে চলেছেন। দেশের প্রধানমন্ত্রীকে এটা করা মানায় না, বলেন মায়াবতী। মমতার পাশে দাঁড়িয়ে ট্যুইট করেছেন সমাজবাদী পার্টির অখিলেশ যাদব। মোদী-অমিত শাহকে তীব্র কটাক্ষ করে তাঁর ট্যুইট, আড়াই জনের অগণতান্ত্রিক কার্যকলাপ রোখার লড়াইয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পাশে আছি। তৃণমূল নেত্রীর পাশে দাঁড়িয়ে ট্যুইটে বিজেপি এবং নির্বাচন কমিশনকে এক বন্ধনীতে ফেলে তুমুল আক্রমণ শানিয়েছেন চন্দ্রবাবু নায়ডুও। সকলকেই পাশে থাকার জন্য ধন্যবাদ জানিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

Comments
Loading...