রাহুল গান্ধীর মোট সম্পত্তির পরিমাণ প্রায় ১৫ কোটি টাকা, সোনিয়ার থেকে নিয়েছেন ৫ লক্ষ টাকা ঋণ, জানালেন হলফনামায়

গত আর্থিক বছরে মা সোনিয়া গান্ধীর থেকে ৫ লক্ষ টাকা ঋণ নিয়েছেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। বৃহস্পতিবার কেরলের ওয়েনাড় কেন্দ্র থেকে মনোনয়ন জমা দেওয়ার সময় রাহুল গান্ধী যে হলফনামা জমা দিয়েছেন তা থেকে জানা যাচ্ছে এই তথ্য।
২০১৪ সালে আমেঠি কেন্দ্রে নির্বাচনে লড়ার সময় নির্বাচন কমিশনকে দেওয়া হলফনামায় স্থাবর-অস্থাবর মিলিয়ে প্রায় ৮ কোটি টাকার সম্পত্তির হিসেব দিয়েছিলেন কংগ্রেস সভাপতি। ২০১৯ সালে সেই সম্পত্তি বেড়ে হয়েছে ১৪ কোটি ৮৫ লক্ষ টাকা।
বৃহস্পতিবার নির্বাচন কমিশনকে জমা দেওয়া হলফনায় দেখা যাচ্ছে, ২০১৮ সালে রাহুল গান্ধীর আয় হয়েছে ১ কোটি টাকার সামান্য বেশি এবং বর্তমানে স্থাবর-অস্থাবর মিলিয়ে রয়েছে প্রায় ১৫ কোটি টাকার সম্পত্তি।
বৃহস্পতিবার কেরলের ওয়েনাড় লোকসভা কেন্দ্রের কংগ্রেস প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন পত্র জমা দেন রাহুল গান্ধী। নির্বাচনে কমিশনে জমা দেওয়া তাঁর সম্পত্তির যে হিসেব দিয়েছেন তিনি তাতে দেখা যাচ্ছে, ২০১৭-১৮ আর্থিক বছরে রাহুল গান্ধীর আয় ১ কোটি ১১ লক্ষ ৮৫ হাজার ৫৭০ টাকা। রাহুলের স্থাবর সম্পত্তির মূল্য ৭ কোটি ৯৩ লক্ষ ৩ হাজার ৯৭৭ টাকা এবং ৫ কোটি ৮০ লক্ষ ৫৮ হাজার ৭৯৯ টাকার অস্থাবর সম্পত্তি রয়েছে তাঁর। হলফনামাতে রাহুল গান্ধী জানান, গত ৩১ শে জানুয়ারির হিসেবে তাঁর হাতে নগদ অর্থ ছিল ৪০ হাজার টাকা।
ওয়েনাড় লোকসভা কেন্দ্রের কংগ্রেস প্রার্থী হিসেবে রাহুল গান্ধীর কমিশনে জমা দেওয়া হলফনামায় দেখা যাচ্ছে, রাহুল গান্ধী ৫ লক্ষ টাকা ব্যক্তিগত ঋণ নিয়েছেন মা সনিয়া গান্ধীর কাছ থেকে। তাঁর মোট ঋণের পরিমাণ ৭২ লক্ষ ১ হাজার ৯০৪ টাকা। বিভিন্ন ব্যাঙ্ক থেকে তিনি এই ঋণ নিয়েছেন। রাহুলের পিপিএফ ও পোস্টাল সেভিংসে রয়েছে ৩৯ লক্ষ ৮৯ হাজার ৩৭ টাকা। ৩৩৩ গ্রাম সোনা সহ মোট ২ লক্ষ ৯১ হাজার ৩৬৭ টাকা মূল্যের অলঙ্কার রয়েছে রাহুল গান্ধীর। বোন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরার সঙ্গে যৌথভাবে ২.৩৪ একর চাষযোগ্য জমি রয়েছে নিউ দিল্লির মেহরাউলিতে। এছাড়া, গুরুগ্রামের সিলোখেরাতে ৫৮৩৮ স্কোয়ার ফিটের একটি বাণিজ্যিক ভবনের মালিক রাহুল গান্ধী।

Comments
Loading...