চাপ বাড়াচ্ছে শিব সেনা, রাম মন্দিরের দাবিতে এবার অযোধ্যা যাত্রা উদ্ধব ঠাকরের

নতুন সরকার ক্ষমতায় আসার পর থেকেই রাম মন্দিরের দাবি নিয়ে গলা তুলতে শুরু করেছে বিশ্ব হিন্দু পরিষদ। এবার একই দাবিতে আন্দোলনে নামার কথা ঘোষণা করে দিল বিজেপির সবচেয়ে পুরনো জোট শরিক শিব সেনা। সূত্রের খবর, শিব সেনা প্রধান উদ্ধব ঠাকরে ১৮ জন নতুন সাংসদকে নিয়ে অযোধ্যা যাত্রা করবেন। শিব সেনা নেতা হর্শল প্রধান জানিয়েছেন, বাদল অধিবেশনের আগেই উদ্ধব ঠাকরে সহ শিবসেনার নতুন সাংসদরা অযোধ্যায় যাবেন। সেখানে রাম মন্দির নির্মাণ সংক্রান্ত আলোচনাসভা করারও কথা রয়েছে।
লোকসভা ভোটের ফল প্রকাশের এক সপ্তাহের মধ্যেই বিশ্ব হিন্দু পরিষদ জানিয়েছে, রাম মন্দির নির্মাণের জন্য আর ‘অনির্দিষ্টকাল’ অপেক্ষা করা হবে না। আগামী ১৮ মাসের মধ্যে অযোধ্যায় রাম মন্দির তৈরির দাবি জানিয়ে প্রধানমন্ত্রীর হাতে একটি সংকল্পপত্র তুলে দেবেন তাঁরা, জানিয়েছিলেন ভিএইচপির কার্যনিবাহী সভাপতি অলোক কুমার। ভিএইচপির সুরে সুর মিলিয়ে, অযোধ্যায় রাম মন্দিরের দাবিতে এবার কেন্দ্রের উপর চাপ বাড়াচ্ছে শিবসেনাও। গত সপ্তাহে শিবসেনার মুখপত্র ‘সামনা’র একটি প্রতিবেদনেও উঠে এসেছিল দ্রুত রাম মন্দির গড়ার দাবি। ‘সামনা’য় লেখা হয়, ভগবান রামের প্রতি শ্রদ্ধাশীল একটি দল কেন্দ্রে ক্ষমতায় ফিরেছে। রাম রাজ্য ও রাম মন্দির তৈরির জন্য কোটি কোটি মানুষ বিজেপির ওপর আস্থা রেখেছে বলে প্রতিবেদনে লেখা হয়।
অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণের দাবিতে, গত বছরের নভেম্বরে একাধিক হিন্দুত্ববাদী সংগঠনের ‘ধর্মসভা’ হয়। সেখানে যোগ দিতে প্রথমবারের জন্য অযোধ্যা গিয়েছিলেন শিবসেনা প্রধান উদ্ধব ঠাকরে। বিজেপি সরকারের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেছিলেন, ‘কুম্ভকর্ণের ঘুম’ ভাঙাতে তিনি হাজির হয়েছেন অযোধ্যায়। বিজেপি সরকার রাতারাতি নোট বাতিলের মতো গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নিতে পারলেও রাম মন্দির তৈরির কাজ কেন শুরু করছে না, সেই প্রশ্ন তুলেছিলেন উদ্ধব ঠাকরে। এরপর একাধিক ইস্যুতে বিজেপি সরকারের সমালোচনা করলেও লোকসভা ভোটের আগে সেই বিজেপির সঙ্গেই জোট করেছিলেন। এবার শিব সেনার রাম মন্দির চাপে কী ফল হয়, সেটাই দেখার।

Comments are closed.