তৃতীয় দিনেই দেরি আহমেদাবাদ-মুম্বই তেজস এক্সপ্রেসের! ৬৩ হাজার টাকা ক্ষতিপূরণ দিচ্ছে আইআরসিটিসি

যাত্রা শুরুর তিন দিনের মধ্যে প্রথমবার স্টেশনে নির্ধারিত সময়ের থেকে প্রায় দেড় ঘণ্টা দেরিতে পৌঁছল মোদী সরকারের আমলের দ্বিতীয় বেসরকারি ট্রেন আহমেদাবাদ- মুম্বই তেজস এক্সপ্রেস। পূর্ব ঘোষণা মতোই যাত্রীদের আর্থিক ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা ঘোষণা করল ইন্ডিয়ান রেলওয়ে ক্যাটারিং অ্যান্ড ট্যুরিজম কর্পোরেশন (আইআরসিটিসি)। বুধবার আইআরসিটিসি জানিয়েছে, আহমেদাবাদ- মুম্বই তেজস এক্সপ্রেসের ৬৩০ জন যাত্রীকে ১০০ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেবে তারা।
গত ১৯ জানুয়ারি থেকে মোদী সরকারের আমলে দ্বিতীয় বেসরকারি ট্রেন হিসেবে যাত্রা শুরু হয় আহমেদাবাদ-মুম্বই তেজস এক্সপ্রেস। বুধবার দেড় ঘণ্টা দেরিতে মুম্বই স্টেশনে পৌঁছয় ট্রেনটি। রেল সূত্রের খবর, ওইদিন আহমেদাবাদ থেকে দু’ মিনিট দেরিতে, ৬ টা ৪২ মিনিটে যাত্রা শুরু করে প্রিমিয়াম ট্রেনটি। কিন্তু মুম্বই সেন্ট্রাল স্টেশনে নির্ধারিত সময় ১ টা ১০ মিনিটের পরিবর্তে ২ টো ৩৬ মিনিটে পৌঁছয়। কিছু প্রযুক্তিগত সমস্যার কারণে এই দেরি বলে জানা গিয়েছে। মুম্বই পৌঁছনোর আগে ভায়ান্ডার ও দহিসার স্টেশনের মাঝে প্রযুক্তিগত সমস্যার কারণে দীর্ঘ সময় দাঁড়িয়ে থাকতে হয় আহমেদাবাদ- মুম্বই তেজস এক্সপ্রেসকে। বুধবার বিকেল সাড়ে তিনটে পর্যন্ত এই রুটে মোট আটটি ট্রেন বাতিল ঘোষণা করে রেলওয়ে।
তবে আইআরসিটিসি- র ঘোষণা অনুযায়ী, বেসরকারি ট্রেনটি এক ঘণ্টারও বেশি দেরিতে চললে যাত্রীরা ১০০ টাকা করে ক্ষতিপূরণ পাবেন। দু’ ঘণ্টার বেশি দেরি হলে প্রত্যেক যাত্রী পাবেন ২৫০ টাকা। বুধবার মোট ৬৫০ জন যাত্রীকে ১০০ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছে আইআরসিটিসি। অর্থাৎ, সংস্থাকে ক্ষতিপূরণ বাবদ যাত্রীদের দিতে হবে ৬৩ হাজার টাকা।
আইআরসিটিসির এক মুখপাত্র জানিয়েছেন, যাত্রীরা ফোন কিংবা ই- মেলের মাধ্যমে তাঁদের আর্থিক দাবি জানাতে পারবেন।
Comments
Loading...