অস্বস্তি বাড়লো অর্ণব গোস্বামীর। ২০০ কোটি টাকার মানহানির মামলা হল তাঁর বিরুদ্ধে। ভুয়ো টিআরপি তৈরি, খবর পরিবেশনের মাধ্যমে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি নষ্ট, বলিউডকে কালিমালিপ্ত করা সহ একাধিক অভিযোগে গত কয়েকদিনে রিপাবলিক টিভির কর্ণধার তথা এডিটর অর্ণব গোস্বামীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয়েছে। এবার ২০০ কোটি টাকার মানহানি মামলার নোটিস ধরানো হল রিপাবলিক টিভি ও তার কর্ণধার অর্ণব গোস্বামীকে। মামলাটি করেছেন প্রয়াত অভিনেতা সুশান্ত সিংহ রাজপুতের বন্ধু সন্দীপ সিংহ।

আইনি নোটিসে অভিযোগ করা হয়েছে যেভাবে তাঁকে সুশান্ত হত্যার ‘মূল ষড়যন্ত্রী’ এবং ‘হত্যাকারী’ হিসেবে উল্লেখ করে দিনের পর দিন খবর পরিবেশন করেছেন রিপাবলিক টিভির এডিটর ইন চিফ অর্ণব গোস্বামী তাতে তাঁর সামাজিক সম্মান নষ্ট হয়েছে।

গত ২৯ সেপ্টেম্বর সিবিআই নিযুক্ত ডক্টর গুপ্তের নেতৃত্বাধীন এইমসের চিকিৎসক প্যানেলের রিপোর্টে জানিয়ে দেওয়া হয় খুন নয়, সুশান্ত সিংহ রাজপূত আত্মহত্যাই করেছেন। এই প্রেক্ষিতে রিপাবলিক টিভির বিরুদ্ধে দায়ের হল মানহানির মামলা।

সুশান্ত সিংহের বন্ধু ও প্রযোজক সন্দীপ সিংহের অভিযোগ, সংশ্লিষ্ট চ্যানেলে তাঁর সম্পর্কে বারবার অবমাননাকর উক্তি এবং চিৎকার করে কটু ভঙ্গিতে তাঁর গ্রেফতারের দাবি জানানো হয়েছে। একাধিক ক্ষেত্রে অহেতুক তাঁকে দোষী সাব্যস্ত করে প্রচার চালায় রিপাবলিক টিভি।

ভারতীয় দণ্ডবিধির ৪৯৯ ও ৫০০ নম্বর ধারায় অর্ণব গোস্বামী এবং রিপাবলিক টিভির বিরুদ্ধে ২০০ কোটি টাকার মানহানির মামলা করেছেন সন্দীপ সিংহ।

১৪ অক্টোবর আইনজীবী রাজেশ কুমারের মাধ্যমে পাঠানো নোটিসে বলা হয়েছে, ১৫ দিনের মধ্যে রিপাবলিক টিভির পোর্টাল থেকে সমস্ত আপত্তিকর খবর ও ভিডিও ফুটেজ সরিয়ে ফেলতে হবে। সেই সঙ্গে সন্দীপ সিংহের বিস্ফোরক অভিযোগ, রিপাবলিক টিভির একজন তাঁর সঙ্গে দেখা করে হুমকি দেন যে, তাঁদের চ্যানেলকে অর্থনৈতিকভাবে সাহায্য না করলে তাঁর বিরুদ্ধে এই ধরনের প্রচার চলবে। এছাড়াও অগাস্টের শেষের দিকে এক রিপোর্টার তাঁর বাড়িতে গিয়ে নিরাপত্তারক্ষী ও বাড়ির কাজের লোকদের হয়রানি করেন বলেও অভিযোগ করেছেন সন্দীপ সিংহ।

ধারাবাহিকভাবে পাশে থাকার জন্য The Bengal Story র পাঠকদের ধন্যবাদ। আমরা যে ধরনের খবর করি, তা আরও ভালোভাবে করতে আপনাদের সাহায্য আমাদের উৎসাহিত করবে।

Login Support us