লোকসভা নির্বাচন পর্বে সবচেয়ে বেশি নির্বাচনী বন্ড বিক্রি মুম্বইয়ে, দু’নম্বরে কলকাতা! রিপোর্ট এডিআর-এর

২০১৮ সালের মার্চ থেকে ২০১৯ সালের অক্টোবর পর্যন্ত গোটা দেশের মধ্যে এসবিআই সবচেয়ে নির্বাচনী বন্ড বিক্রি করেছে মুম্বইয়ে, দু’নম্বরে কলকাতা। যদিও এই সময়ের মধ্যে রাজনৈতিক দলগুলি সবচেয়ে বেশি মূল্যের বন্ড ভাঙিয়েছে দিল্লি থেকে। বেসরকারি সংস্থা অ্যাসোসিয়েশন ফর ডেমক্রেটিক রিফর্মস (এডিআর) মঙ্গলবার এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে একথা জানিয়েছে।
সম্প্রতি নির্বাচনী বন্ড নিয়ে দেশজুড়ে নতুন করে শুরু হইয়েছে বিতর্ক। এই বন্ডের মাধ্যমে কালো টাকা ঘুরপথে রাজনৈতিক দলগুলির ঘরে ঢুকছে বলে অভিযোগ উঠেছে। মামলা হয়েছে সুপ্রিম কোর্টেও। গত কয়েক বছরে নির্বাচনী বন্ডের মাধ্যমে রাজনৈতিক দলগুলি যে টাকা আয় করেছে তার সিংহ ভাগ বিজেপি পেয়েছে বলেও উঠে এসেছে তথ্য।
এদিন এডিআর-এর রিপোর্টে প্রকাশ, ২০১৮ সালের মার্চ থেকে ২০১৯ সালের অক্টোবর পর্যন্ত দিল্লি থেকেই প্রায় ৪ হাজার ৯১৮ কোটি টাকার নির্বাচনী বন্ড ভাঙানো হয়েছে, যা মোট বন্ডের প্রায় ৮০ শতাংশ। যদিও এই সময়ের মধ্যে বারো দফায় সবচেয়ে বেশি মূল্যের নির্বাচনী বন্ড বিক্রি হয়েছে দেশের বাণিজ্য রাজধানী মুম্বইয়ে। বন্ড বিক্রিতে দু’নম্বরে রয়েছে কলকাতা। লোকসভা নির্বাচন চলাকালীন এই বিপুল পরিমাণ টাকার বন্ড কলকাতা থেকে বিক্রি হওয়ার ঘটনা নিয়ে সেই সময় প্রশ্ন তুলেছিল তৃণমূল এবং সিপিএম। রাজ্যে বিজেপির বেনজির উত্থানের পিছনে টাকার লেনদেনের অভিযোগ তুলেছিলেন মমতা ব্যানার্জি।
এই সমস্ত অভিযোগের মধ্যেই এডিআর নির্বাচনী বন্ড তুলে দেওয়ার আর্জি জানিয়েছিল সুপ্রিম কোর্টে। বন্ড প্রকল্পে তারা অন্তর্বর্তীকালীন স্থগিতাদেশও চায়। যদিও সোমবার সুপ্রিম কোর্ট স্থগিতাদেশ দিতে রাজি হয়নি। এই মামলায় আদালত দু’সপ্তাহের মধ্যে কেন্দ্র ও নির্বাচন কমিশনের মতামত চেয়েছে। এডিআর-এর অভিযোগ, এই বন্ডের মাধ্যমে কালো টাকাকে শাসকদলের স্বার্থে ব্যবহার করা হচ্ছে।
সম্প্রতি এডিআরের একটি আরটিআই -এর উত্তরে স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া জানিয়েছে, ২০১৮ সালের মার্চ মাস থেকে ২০১৯ সালের অক্টোবর পর্যন্ত মোট ১২ হাজার ৩১৩ টি বন্ড তারা বিক্রি করেছে, যার মূল্য ৬,১২৮.৭২ কোটি টাকা। এর মধ্যে রাজনৈতিক দলগুলি ১২ হাজার ১৭৩ টি বন্ড ভাঙিয়ে মোট ৬,১০৮.৪৭ কোটি টাকা তুলে নিয়েছে।
এই সময়ের মধ্যে সবচেয়ে বেশি মূল্যের বন্ড বিক্রি হয়েছে মুম্বইয়ে। এডিআরের রিপোর্ট অনুযায়ী, মুম্বইয়ে মোট ২ হাজার ৮৯৯ টি বন্ড বিক্রি হয়েছে, যার মূল্য ১,৮৭৯.৯৬ কোটি টাকা। তা মোট বিক্রিত বন্ডের ৩০.৬৭ শতাংশ। এরপরেই রয়েছে কলকাতা। ২০১৮ সালের মার্চ থেকে ২০১৯ সালের অক্টোবর পর্যন্ত মোট ৩ হাজার ৪৭৮ টি বন্ড বিক্রি হয়েছে কলকাতায়। যার মূল্য ১,৪৪০.৩৩৭ কোটি টাকা। দিল্লিতে বিক্রি হয় ১ হাজার ৬৩০ টি বন্ড, এর মূল্য ৯১৮.৫৮ কোটি টাকা।
তথ্যের অধিকার আইনে এসবিআই জানিয়েছে, ৮ হাজার ৯০৩ টি বন্ড ভাঙিয়ে মোট ৪,৯১৭.৫১২ কোটি টাকা তোলা হয় শুধু দিল্লি থেকে। জাতীয় রাজনৈতিক দলগুলির সদর দফতরের শহরেই প্রায় ৮০ শতাংশ নির্বাচনী বন্ড ভাঙানো হয়েছে।
Comments
Loading...