এনএমসি বিলের বিরোধিতায় আইএমএর ডাকে চিকিৎসকদের ধর্মঘট, চালু কেবল এমার্জেন্সি, দেশজুড়ে স্বাস্থ্যক্ষেত্রে প্রবল ভোগান্তির আশঙ্কা

কেন্দ্রের প্রস্তাবিত ন্যাশনাল মেডিকেল কমিশন বা এনএমসি বিলের বিরোধিতা করে আগামী ৩১ শে জুলাই স্বাস্থ্যক্ষেত্রে ২৪ ঘন্টার ধর্মঘটের ডাক ইন্ডিয়ান মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের। দেশের সমস্ত চিকিৎসকদের কাছে বুধবার সকাল ৬ টা থেকে বৃহস্পতিবার সকাল ৬ টা পর্যন্ত হাসপাতালের বহির্বিভাগ বন্ধ রাখার আবেদন জানিয়েছে আইএমএ। পাশাপাশি দেশের সমস্ত মেডিকেল কলেজের ছাত্রছাত্রীকেও এই ধর্মঘটে সামিল হওয়ার ডাক দেওয়া হয়েছে। শুধুমাত্র চালু থাকবে হাসপাতালের এমার্জেন্সি পরিষেবা। এর জেরে দেশজুড়ে সমস্যায় পড়তে চলেছেন রোগীরা।
সোমবার লোকসভায় এনএমসি বিল পাশ করিয়েছে কেন্দ্র। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষবর্ধন জানিয়েছেন, দেশের চিকিৎসা ব্যবস্থার সার্বিক উন্নতি এবং মেডিকেল শিক্ষায় দুর্নীতি রুখতে এই বিল আনছে কেন্দ্র। কিন্তু ইন্ডিয়ান মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের তরফে অভিযোগ, বিলের সাহায্যে কার্যত মেডিকেল শিক্ষা ব্যবস্থাকেই নিয়ন্ত্রণ করতে চাইছে কেন্দ্র। এই বিলের ৩২ নম্বর অনুচ্ছেদে বলা হয়েছে, সাড়ে ৩ লক্ষ হাতুড়ে ডাক্তারকে লাইসেন্স দেওয়া হবে। যা নিয়ে তীব্র আপত্তি তুলেছে ডাক্তারদের সংগঠন। আইএমএয়ের সাধারণ সম্পাদক আর ভি অশোকনের অভিযোগ, এতে দেশজুড়ে হাতুড়ে ডাক্তারদের রমরমা বাড়বে। পাশাপাশি কোন কোন কোয়াক ডাক্তার রেজিস্ট্রেশনের আওতায় আসবেন, তা এনএমসি বিলে স্পষ্ট করা হয়নি। অশোকনের মতে, কেন্দ্রের এনএমসি বিল দেখে মনে হচ্ছে, ফার্মাসিস্ট, নার্স, ফিজিওথেরাপিস্ট সবাইকে চিকিৎসকের মর্যাদা দিতে চলেছে কেন্দ্র। আখেরে এতে হাতুড়ে ডাক্তারি পরিষেবাকেই উৎসাহিত করা হচ্ছে বলে অভিযোগ আইএমএ-র। তাই বিলে দ্রুত সংশোধনের দাবি জানিয়ে বুধবার ২৪ ঘন্টার ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে আইএমএ। বিভিন্ন চিকিৎসক সংগঠন ও ডাক্তারি কলেজের পড়ুয়ারা কালো ব্যাজ পরে এই বিলের বিরোধিতায় নামবেন। কেন্দ্র ন্যাশনাল মেডিকেল কমিশন বিলে প্রয়োজনীয় সংশোধনী না আনলে বৃহত্তর আন্দোলনের পথে যাওয়ার হুঁশিয়ারি চিকিৎসকদের।

Comments
Loading...