মন্দা অনিবার্য, অর্থনীতিকে বাঁচাতে আশু প্রয়োজন তিন পদক্ষেপের, মোদীকে পরামর্শ মনমোহন সিংহের

করোনার আগে থেকেই ধুঁকছিল ভারতের অর্থনীতি। কিন্তু করোনার আবহে অর্থনীতি বিপর্যস্ত। এই পরিস্থিতিতে অর্থনীতির গতি ঘোরাতে কেন্দ্রের বিজেপি সরকারকে তিন পরামর্শ দিলেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী তথা রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার প্রাক্তন গভর্নর মনমোহন সিংহ। যার মূলে রয়েছে খোলাবাজারে আরও বেশি বেশি নগদের জোগান।
সম্প্রতি বিবিসিকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী বলেন, এই মুহূর্তে সরকারের সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন সাধারণ মানুষের হাতে নগদ অর্থ তুলে দেওয়া। তাঁর তিন পরামর্শের প্রথমটিতে একথাই বলছেন মনমোহন সিংহ। যে তিন পরামর্শের কথা তিনি বলেছেন তা হল-

এক, সাধারণ মানুষের ক্রয়ক্ষমতা বৃদ্ধি করতে সরাসরি প্রচুর পরিমাণ নগদ দিয়ে সহযোগিতা করতে হবে।

দুই, বাজারে মূলধন বৃদ্ধি সুনিশ্চিত করতে হবে সরকারকে। ব্যবসায়ীদের অর্থের জোগান বাড়াতে হবে। এবং সেটা সরকারি ক্রেডিট গ্যারান্টির মাধ্যমে করা দরকার।

তিন, সমস্ত অর্থনৈতিক ক্ষেত্রকেই প্রাতিষ্ঠানিক স্বায়ত্বশাসন দিতে হবে। অর্থাৎ, কোনও সংস্থার স্বাধীন সিদ্ধান্তে সরকার কোনও হস্তক্ষেপ করবে না।

তবে এই পদক্ষেপ কার্যকরের জন্যও প্রয়োজন প্রচুর অর্থ। মহামারির সময়ে সরকারি কোষাগারের অবস্থাই তো খারাপ। সেক্ষেত্রে কি সরকার টাকা ছাপানোর পথে হাঁটতে পারে? মনমোহন সিংহ বলছেন, এটা না করাই ভালো। তবে অন্য কোনও বিকল্প না থাকলে, শেষ বিকল্প হিসেবে টাকা ছাপানোর কথা ভাবা যেতে পারে।
বিশেষজ্ঞরা বলছেন, পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে অর্থনীতিকে দাঁড় করানোর জন্য মূলত রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার উপর নির্ভর করতে হচ্ছে সরকারকে। অর্থমন্ত্রী বা প্রধানমন্ত্রী সে অর্থে বিশেষ কোনও কার্যকরী নীতিই গ্রহণ করতে পারেননি। কেন্দ্র যে তথাকথিত প্যাকেজের কথা বলছে, সেটি মূলত ঋণ সর্বস্ব। যার সুবিধা সরাসরি সাধারণ মানুষ পাচ্ছে না। আর সাধারণ মানুষ সরাসরি সুবিধা না পেলে আর যাই হোক অর্থনীতির দৈন্যদশা যে ঘুচবে না। এই প্রেক্ষিতে মোদী সরকারকে অর্থনীতি নিয়ে তিনটি পরামর্শ দিলেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংহ।

Comments
Loading...