নির্ভয়া: মুকেশের প্রাণভিক্ষার আর্জি খারিজ সুপ্রিম কোর্টে, এবার রায় সংশোধনের আবেদন আরেক অপরাধীর

নির্ভয়া মামলায় দণ্ডিতদের মধ্যে মুকেশ সিংহের প্রাণভিক্ষার আর্জি খারিজ করে দিল সুপ্রিম কোর্ট। আর কোনও আইনি বিকল্প না থাকায় মুকেশের ফাঁসি একপ্রকার নিশ্চিত। তবে আদালতের পূর্ব নির্দেশ অনুযায়ী, ১ ফেব্রুয়ারি তার ফাঁসি হবে কি না তা এখনই বলা যাচ্ছে না। কারণ, ফাঁসির মাত্র তিনদিন আগে সাজা কমাতে কিউরেটিভ পিটিশন দায়ের করেছে নির্ভয়া কাণ্ডের আর এক দণ্ডিত অক্ষয় ঠাকুর। মুকেশ ও পবনের পিটিশন খারিজ হলেও অক্ষয় সিংহের কিউরেটিভ পিটিশনের শুনানির উপর দাঁড়িয়ে আছে ১ ফেব্রুয়ারি তাদের ফাঁসি হবে কি হবে না, সেই সিদ্ধান্ত।
বুধবারই অক্ষয়ের কিউরেটিভ পিটিশনের শুনানি হবে বিচারপতি এ এস বোপান্না ও বিচারপতি অশোক ভূষণের বেঞ্চ।
মৃত্যদণ্ড এড়াতে সব আইনি বিকল্পের সুযোগ নিতে মরিয়া নির্ভয়া কাণ্ডের দণ্ডিতরা। গত মাসে সুপ্রিম কোর্ট অক্ষয়ের আবেদন খারিজ করেছিল। মৃত্যুদণ্ড এড়াতে দিল্লির দূষণকে কাঠগড়ায় তুলেছিল সে। এদিকে সুপ্রিম কোর্টে মুকেশ সিংহের পিটিশন খারিজ হওয়ার পর রাষ্ট্রপতির কাছে প্রাণভিক্ষার আবেদন করে। কিন্তু রাষ্ট্রপতি কোবিন্দ তা খারিজ করার পর ফের শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হয় সে। মঙ্গলবার মুকেশের আইনজীবী সুপ্রিম কোর্টে সওয়াল করে, তিহার জেলে যৌন অত্যাচারের শিকার হতে হয় মুকেশকে। রাষ্ট্রপতি চটজলদি সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলেও দাবি করেন মুকেশের আইনজীবী। বুধবার সুপ্রিম কোর্টের পর্যবেক্ষণ, ভেবেচিন্তেই রাষ্ট্রপতি দণ্ডিতের প্রাণভিক্ষার আবেদন খারিজ করেছেন। সব দস্তাবেজ যাচাই করেই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন রামনাথ কোবিন্দ। এরপর মুকেশের আর্জি খারিজ করে দেয় সুপ্রিম কোর্ট। ফলত, ফাঁসি এড়ানোর আর কোনও আইনি বিকল্প হাতে নেই মুকেশের। এখন ১ ফেব্রুয়ারি নির্ভয়া কাণ্ডের দণ্ডিতদের ফাঁসি হবে কি না, সেটাই পরিষ্কার করবে শীর্ষ আদালত।

Comments
Loading...