বিপুল ভাড়া, যাত্রীর অভাবে বন্ধ হয়ে গেল কারওয়াচৌথ এক্সপ্রেস

যাত্রীর অভাবে বাতিলই হয়ে গেল কারওয়াচৌথ স্পেশাল ট্রেন। দম্পতিদের রাজস্থান ভ্রমণের জন্য এই বিশেষ ট্রেনের বন্দোবস্ত করা হয়েছিল। দিল্লির সফদরজং স্টেশন থেকে ১৪ ই অক্টোবর ছাড়ার কথা ছিল কারওয়াচৌথ স্পেশাল ট্রেনের। আগ্রা, জয়পুর, যোধপুর, জয়সলমির ফোর্ট, গদিসার লেক, মেহেরগড় ফোর্ট, যশওয়ান্ত থারা, অম্বর ফোর্ট, সিটি প্যালেস ঘুরে ফের ১৮ ই অক্টোবর দিল্লি ফেরার কথা ছিল ট্রেনটির। ১৭ ই অক্টোবর কারওয়াচৌথ উৎসবের কথা মাথায় রেখে দম্পতিদের জন্য এই বিশেষ ট্রেনের নাম রাখা হয়েছিল ‘কারওয়াচৌথ স্পেশাল’। কিন্তু ৭৮ আসনের এই ট্রেনে মাত্র দুই দম্পতি, অর্থাৎ চার জন টিকিট কেটেছিলেন। ফলে বাধ্য হয়েই ট্রেনটি বাতিল করে দেওয়া হয়েছে।
আইআরসিটিসি জানিয়েছিল, বিশেষ এই ট্রেনে এমন সব সুবিধা দেওয়া হবে যা আপনার বিশেষ মানুষটির আজীবন স্মরণীয় হয়ে থাকবে। যাত্রীদের জন্য উন্নত পরিষেবার মধ্যে রাখা হয়েছিল ব্যক্তিগত ডিজিটাল লকার, শাওয়ার কিউবিকল, ফুট মাসাজের বন্দোবস্ত। এমনকী দম্পতিদের নিরিবিলিতে সময় কাটানোর জন্য ট্রেনে সিঙ্গল সিটার সোফারও ব্যবস্থা ছিল। পাশাপাশি, তাঁদের ১০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত বিনামূল্যে বিমার সুবিধাও দেওয়া হয়েছিল। এছাড়া বাচ্চাদের জন্য বিশেষ ব্যবস্থা করা হয়েছিল। কিন্তু তাও উৎসাহ দেখা যায়নি। সাকুল্যে দুই দম্পতি এর টিকিট বুক করেছিলেন। সূত্রের খবর, তাঁদেরকে টিকিটের দাম ফেরত দিয়ে দেওয়া হচ্ছে।
কিন্তু উৎসবের মরসুমেও কেন চলল না এই বিশেষ ট্রেন? কর্তৃপক্ষের একাংশ মনে করছেন, টিকিটের দাম বেশি হওয়ার জন্যই উৎসাহে ভাটা পড়েছে। কারওয়াচৌথ স্পেশাল ট্রেনের এসি ফার্স্ট ক্লাসে প্রত্যেক দম্পতির টিকিট মূল্য রাখা হয়েছিল ১ লক্ষ ২ হাজার ৯৬০ টাকা। আর এসি টু টিয়ারের ভাড়া ছিল ৯০ হাজার ৯০ টাকা। সেই কারণেই হয়তো যাত্রী টানতে পারেননি তাঁরা বলে জানান এক আইআরসিটিসি আধিকারিক।

Comments
Loading...