CAA দূর অস্ত, বিধি প্রণয়নে ২০২২ এর জানুয়ারি পর্যন্ত সময় চাইল শাহের মন্ত্রক

সিএএ আইন পাশ হয়েছে ২০১৯ সালে। নিয়ম অনুযায়ী আইন পাশের ৬ মাসের মধ্যে আইনের বিধি প্রণয়ন করতে হয়। কিন্তু ২ বছর হয়ে গেল সিএএর ক্ষেত্রে এখনও কোনও বিধি প্রণয়ন হয়নি। এবার সংসদে বিধি প্রণয়নের জন্য ২০২২ সাল পর্যন্ত সময় চাইল কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক। অর্থাৎ ২০২২ সালের আগে চালু হচ্ছে না সিএএ।

সোমবার লোকসভা এবং রাজ্যসভার কমিটির কাছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে, সিএএ কার্যকরীর জন্য প্রয়োজনীয় বিধি তৈরি করতে হবে। তাই ২০২২ এর আগে নয়া আইন চালু করা সম্ভব নয়।

এদিন সংসদে সিএএর কাজ কতদূর এগিয়েছে যা জানতে চান কংগ্রেস সাংসদ গৌরব গগৈ। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী নিত্যানন্দ রাই সেই প্রশ্নের জবাবে সিএএর সময়সীমা বাড়ানোর কথা বলেন।

বিধানসভা ভোটের আগে একধিক বার রাজ্যে এসে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ বলেছিলেন, করোনা নিয়ন্ত্রণে এলেই সিএএ কার্যকর হবে। রাজ্যে মতুয়া সম্প্রদায়ের ভোট পেতেই এই কথা বারবার বলেছেন অমিত শাহ।

২০১৯ সালে ১২ ডিসেম্বর সিএএ নিয়ে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়। ২০২০ সালের জানুয়ারি মাসে তা আইনে পরিণত হয়। এই সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন অনুযায়ী, পাকিস্তান, আফগানিস্তান এবং বাংলাদেশের মত প্রতিবেশী দেশ থেকে সংখ্যালঘুরা ভারতে আশ্রয় নিলে নাগরিকত্বের জন্য আবেদন করতে পারবেন।

Comments
Loading...