কেন টিকিট পাননি দেবাংশু? এবার বিজেপিতে? ফেসবুক লাইভে জবাব দিলেন খেলা হবে র‍্যাপের স্রষ্টা

কী করবেন দেবাংশু?

বন্ধু এবার খেলা হবে!
বাংলার সবচেয়ে হাইভোল্টেজ বিধানসভা ভোটের যেন থিম সং হয়ে উঠেছে এই বাক্যবন্ধ। কিন্তু স্লোগানের বিশ্ব বিপণনের দায়িত্বে থাকা তরুণ তৃণমূল নেতা দেবাংশু ভট্টাচার্য নিজেই যে টিকিট পেলেন না!
তৃণমূলের সোশ্যাল মিডিয়া প্রচারকে অন্য মাত্রা দিয়েছেন তিনি। জনসভা থেকে টিভি চ্যানেলের আলোচনাচক্র, দেবাংশু ভট্টাচার্য যেন তৃণমূলের সঙ্গে সমার্থক। কিন্তু সেই তুমুল জনপ্রিয় যুব নেতাকেই টিকিট দিলেন না মমতা ব্যানার্জি। কেন? তাহলে কী করবেন দেবাংশু? বিজেপিতে যোগ দেবেন?
যাবতীয় জল্পনার জবাব দিলেন বালির দেবাংশু ভট্টাচার্য। সোমবার বেলা ১২ টা নাগাদ ফেসবুক লাইভে এসে জানালেন নিজের ভাবনা। দাবি করলেন টিকিটের লোভে আদর্শ বিসর্জন দেওয়ার মানুষ তিনি নন।
বললেন, তাঁকে যে কেন্দ্রে প্রার্থী করা হয়নি বলে বিরোধীরা কটাক্ষ করছেন সেই বালিতে যেদিন ভোটের মনোনয়ন জমা দেওয়ার শেষদিন, তখনও তাঁর বয়স ২৫ বছর হচ্ছে না। স্বাভাবিক ভাবে তাঁর টিকিট পাওয়া সম্ভব নয়। আবার শেষ দুই দফায় যেখানে ভোট তখন বয়স বাধা না হলেও তখন ভোট উত্তরবঙ্গে। নিজেই জানালেন, যে এলাকা সম্বন্ধে কোনও ধারণা নেই তাঁর।

দেবাংশু ভট্টাচার্যের নিশানায় ছিলেন মূলত সিপিএম ও বিজেপি। তিনি বললেন, যে সমস্ত সিপিএম ও বিজেপির বন্ধুরা আমি টিকিট পাইনি বলে বিভিন্ন ট্রোল করছেন তাঁদের ধন্যবাদ। আমার ভিডিও যাঁদের কাছে পাঠাবেন, তাঁদেরকেও আমার ফ্যান বানিয়ে নেব। দিনের শেষে সিপিএম-বিজেপির হাতে থাকবে পেন্সিল, বলেন খেলা হবে র‍্যাপের মালিক।
দেবাংশুর হুঁশিয়ারি, যে সমস্ত মানুষ তাঁকে টিকিট না পাওয়ায় কটাক্ষ করেছিলেন, তাঁদের বাড়ির সামনে দাঁড়িয়ে মাইক বাজিয়ে বক্তৃতা করবেন তিনি। তরুণ এই নেতা বলেন, ভালই হয়েছে টিকিট না পেয়ে। এবার ২৯৪ টি কেন্দ্রে ঘুরে ঘুরে প্রচার করার সুযোগ পাওয়া যাবে। একইসঙ্গে দলবদলু সোনালি গুহ, শুভেন্দু, মুকুল, শোভনদের তীব্র কটাক্ষে বেঁধেন দেবাংশু। বলেন, জামা-গেঞ্জির মতো আদর্শ বদলে ফেলতে শিখিনি।
দেবাংশু জানিয়েছেন, তাঁর একমাত্র লক্ষ্য মমতা ব্যানার্জিকে তৃতীয়বারের জন্য মুখ্যমন্ত্রী করা। তাঁর কথায়, ২ মে দিদির পায়ে সবুজ আবির দিয়ে প্রণাম করব। বলব, দিদি এবার আমার আপাতত ছুটি।

Comments
Loading...