সরকারি চাকরির পেছনে না ছুটে যুব সম্প্রদায়কে পানের দোকান খোলার পরামর্শ ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রীর।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বেকার যুবক-যুবতীদের পাকোড়া বিক্রির পরামর্শ দিয়েছিলেন। অনেকটা সেই পদাঙ্ক অনুসরন করে এবার ত্রিপুরার বেকার যুব-সম্প্রদায়কে পান বিক্রি করার উপদেশ দিলেন ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব। এখানেই না থেমে বিপ্লব দেব আরও বলেছেন, রাজ্যের শিক্ষিত যুব সম্প্রদায় রাজনৈতিক নেতা এবং সরকারি চাকরির পিছনে ছুটে অযথা সময় নষ্ট করছেন। তাই তাঁর পরামর্শ, সরকারি চাকরির পেছনে না দৌড়ে গরু, হাঁস,মুরগি প্রতিপালন করলে বা পশুপালনে মনোযোগী হলে তাঁরা অনেক বেশি আর্থিকভাবে লাভবান হবেন। শনিবার আগরতলায় বিশ্ব পশু চিকিৎসা দিবস উপলক্ষ্যে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে এই মন্তব্য করেন ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী।
বিপ্লব দেবের এই মন্তব্যের পরেই শোরগোল শুরু হয়েছে ত্রিপুরাজুড়ে। ২৫ বছরের বাম সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করে শাসন ক্ষমতায় আসা বিজেপির অন্যতম নির্বাচনী প্রতিশ্রতি ছিল কর্মসংস্থান। ভোটের আগে ঢালাও প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল বিজেপি। কিন্তু নতুন কর্মসংস্থানের দিশা না দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী যেভাবে রাজ্যের যুব সম্প্রদায়কে পানের দোকান খোলার এবং গরু, হাঁস, মুরগি প্রতিপালনের পরামর্শে দিয়েছেন, তা নিয়ে ইতিমধ্যেই বিরোধীরা সমালোচনা শুরু করেছেন। কয়েকদিন আগেই মহাভারতের যুগে ইন্টারনেট পরিষেবা থেকে শুরু করে প্রাক্তন বিশ্বসুন্দরী ডায়না হেডেনকে নিয়ে মন্তব্য করে বিতর্কে জড়ান বিপ্লব দেব।
এবার রাজ্যে কর্মসংস্থানের দিশা দিতে গিয়ে বেকার যুবকদের পানের দোকান খুলতে বললেন তিনি।

Comments
Loading...