মধ্যপ্রদেশে পতনের মুখে কমলনাথ সরকার, বিজেপিতে গান্ধী পরিবার ঘনিষ্ঠ জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া

কর্ণাটকের এবার মধ্যপ্রদেশে ভাঙনের মুখে রাজ্যের কংগ্রেস সরকার। ভাঙতে চলেছে কংগ্রেসও। মধ্যপ্রদেশের কংগ্রেসের শীর্ষ নেতা জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া দল থেকে ইস্তফা দিয়ে বিজেপিতে যোগ দিচ্ছেন। এদিকে তাঁর রাস্তা ধরে মধ্যপ্রদেশের ২১ জন কংগ্রেস বিধায়ক কমল নাথ সরকারের উপর থেকে তাঁদের সমর্থন তুলে নিয়ে পদত্যাগ করেছেন। সব মিলিয়ে মহাসংকটে কংগ্রেস।
২৩০ আসনের মধ্যে মধ্যপ্রদেশ বিধানসভায় সংখ্যাগরিষ্ঠতার ভিত্তিতে মাত্র চারটিতে এগিয়ে রয়েছে কংগ্রেস। সোমবার রাতে মধ্যপ্রদেশের ছয় মন্ত্রী-সহ মোট ১৭ জন বিধায়ক বিমানে বেঙ্গালুরু চলে যান। জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়ার ঘনিষ্ঠ ওই বিধায়কদের সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার পিছনে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহই রয়েছেন বলে অভিযোগ কংগ্রেসের। সূত্রের খবর, সোমবার রাতে অমিত শাহের দিল্লির বাসভবনে বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্বের বৈঠক বসে। সেখানেই পাকা হয়ে যায় জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়ার বিজেপি-যোগের কথা। সেই সঙ্গে জ্যোতিরাদিত্যর ঘনিষ্ঠ বিধায়কদের দাবি মেনে মধ্যপ্রদেশে কমল নাথের সরকার ভেঙে বিজেপি সরকার গড়ার প্রক্রিয়াতে নেমে পড়েন বিজেপি নেতারা। হয় সরকার ভাঙার ছক।
সেই ছক অনুযায়ীই মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়ার দেখা হয়। মোদীর সঙ্গে বৈঠক করে বেরিয়েই কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গান্ধীর কাছে ইস্তফাপত্র পাঠিয়ে দেন গান্ধী পরিবারের ঘনিষ্ঠ সিন্ধিয়া। খুব তাড়াতাড়ি বিজেপিতে আনুষ্ঠানিক যোগদানের কথা থাকলেও বাইরে এ বিষয়ে মুখ খুলছেন না সিন্ধিয়া। শুধু সনিয়া গান্ধীকে পাঠানো ইস্তফাপত্রে তাঁর নতুন করে পথ চলা শুরুর বার্তা দিয়েছেন তিনি। সূত্রের খবর, দিল্লিতে বিজেপির সদর দফতরে মঙ্গলবার রাতের মধ্যেই বিজেপিতে আনুষ্ঠানিকভাবে যোগ দেবেন সিন্ধিয়া।
কংগ্রেসের ২১ জন বিধায়কের ইস্তফাপত্র গৃহীত হলে ১৫ মাসের কমল নাথ-সরকারের ভেঙে পড়া শুধু সময়ের অপেক্ষা। সূত্রের খবর, কংগ্রেসের আরও ছয় বিধায়ক দল ছাড়তে চলেছেন। মধ্যপ্রদেশে কংগ্রেস সরকার ভেঙে ফের মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসেবে শিবরাজ সিংহ চৌহানই বিজেপির প্রথম পছন্দ বলে খবর। প্রথমে কর্নাটক, তারপর ১৫ মাসের মধ্যপ্রদেশের কংগ্রেস সরকার ভেঙে বিজেপির পরবর্তী লক্ষ্য হতে কি মাস কয়েক আগে কংগ্রেসের সমর্থনে ঝাড়খণ্ডে গড়া জেএমএম সরকার? প্রশ্ন উঠেছে তা নিয়ে।

Comments
Loading...