অস্বস্তিতে গুজরাত বিজেপি: ভোটে অনিয়ম ও কারচুপির অভিযোগে নির্বাচন ও বিধায়ক পদ বাতিল মন্ত্রী ভুপেন্দ্র সিংহের

ভোটে কারচুপি ও অনিয়মের দায়ে গুজরাতে বিজেপি সরকারের মন্ত্রী ভুপেন্দ্র সিংহ ছুদাসামার নির্বাচন ও বিধায়ক পদ বাতিল করল গুজরাত হাইকোর্ট। ২০১৭ সালে গুজরাতে বিধানসভা নির্বাচনে এই প্রবীণ বিজেপি নেতার বিরুদ্ধে ভোট কারচুপি করে জেতার অভিযোগ উঠেছিল। হাইকোর্টে সেই অভিযোগ সত্য বলে প্রমাণিত হয়।
কংগ্রেস নেতা অশ্বিন রাঠোরের পিটিশনের পরিপ্রেক্ষিতে মঙ্গলবার গুজরাত হাইকোর্টের বিচারপতি পরেশ উপাধ্যায় এই বিজেপি মন্ত্রীর নির্বাচন বাতিল ঘোষণা করেন।
ভুপেন্দ্র সিংহ বিজেপির অন্যতম বর্ষীয়ান নেতা এবং বিজয় রূপানি সরকারের শিক্ষা, আইন সহ একাধিক দফতরের মন্ত্রী। তিনি ঢোলকা থেকে বিজেপির টিকিটে বিধায়ক হন।
তবে ২০১৭ সালের বিধানসভা ভোটে ভুপেন্দ্রর বিরুদ্ধে নির্বাচনী কারচুপির অভিযোগ আনেন তাঁর বিপক্ষ তথা কংগ্রেস নেতা অশ্বিন রাঠোর। ২০১৭ সালে ঢোলকা বিধানসভা কেন্দ্র থেকে মাত্র ৩২৭ ভোটে জেতেন ভুপেন্দ্র সিংহ।
অশ্বিন রাঠোর অভিযোগ করেছিলেন, এই কারচুপির কাজে ভুপেন্দ্রকে সহায়তা করেন ঢোলকার রিটার্নিং অফিসার ও ডেপুটি কালেক্টর ধবল জানি। কংগ্রেস নেতা পোস্টাল ব্যালটে ৪২৯ টি ভোট পুনরায় গণনার দাবি করলে তা খারিজ করে দিয়েছিলেন ধবল জানি। কিন্তু অশ্বিন রাঠোর অনিয়মের অভিযোগ তুলে আদালতে পিটিশন দাখিল করেছিলেন।
ভুপেন্দ্র সিংহের মতো একজন মন্ত্রীর নির্বাচন বাতিল হয়ে যাওয়ায় ব্যাপক চাপে পড়েছে গুজরাতের বিজেপি সরকার। কোনও শাসক দলের মন্ত্রীর নির্বাচন বাতিল হয়ে যাওয়া ভারতে প্রায় বিরল। এখন ভুপেন্দ্র সিং সুপ্রিম কোর্টে হাইকোর্টের রায়ের ওপর স্থগিতাদেশ চেয়ে আবেদন করতে পারেন।

Comments
Loading...