করোনা আতঙ্ক: গণপিটুনিতে যুবক খুন

এবার গণপিটুনির কারণ করোনা! করোনাভাইরাস ছড়ানোর অভিযোগে দিল্লির বাওয়ানায় এক যুবককে পিটিয়ে মারার অভিযোগ উঠল।
বুধবার পুলিশ জানিয়েছে, দিল্লির হারেওয়ালি গ্রামের বাওয়ানার বাসিন্দা মেহবুব আলি মধ্যপ্রদেশের ভোপালে গিয়েছিলেন তাবলিঘি জামাতের সভায় যোগ দিতে। দিন পঁয়তাল্লিশ পর একটি সবজি বোঝাই লরি করে রাজধানী ফিরে যান। আজাদপুর বাজারে তাঁর শারীরিক পরীক্ষা করে ছেড়ে দেওয়া হয়।
পুলিশ সূত্রে খবর, মেহবুব গ্রামে ফেরার পরই গুজব ছড়ায়, গ্রামে করোনা ছড়াতেই ফিরে এসেছে সে। এই প্রেক্ষিতে রবিবার গ্রামের একটি মাঠে ওই যুবককে গণপিটুনি দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। চলে ব্যাপক মারধর। খবর পেয়ে সেখানে দ্রুত পৌঁছোয় পুলিশ। মেহবুবকে উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে গেলেও শেষ রক্ষা হয়নি। চিকিৎসকেরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। ঘটনায় অজ্ঞাতপরিচয় কয়েকজনের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় মামলা রুজু হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।
করোনা আতঙ্কে দেশের নানা প্রান্তে চিকিৎসককে তাঁর বাড়িতে ঢুকতে বাধা দেওয়া, নার্সকে তাঁর ভাড়াবাড়ি থেকে বের করে দেওয়া, গণপিটুনির মতো একাধিক ঘটনা সামনে এসেছে। এদিকে দিল্লির নিজামুদ্দিনে মার্চের মাঝামাঝি তাবলিঘি জামাতের এক সভায় দেশের নানা প্রান্তের মানুষ জড়ো হওয়ায় করোনা সংক্রমণ গত কয়েকদিনে দ্রুত ছড়িয়ে পড়েছে বলে দাবি করেছে কেন্দ্র।

Comments
Loading...